ব্রেকিং নিউজ:
LIVE TV
চিকিৎসা ক্ষেত্রে অবদান রাখছে মিশরের ঔষধী বাগান
নিউজ ডেস্ক    সেপ্টেম্বর ১৪, ২০১২, শুক্রবার,     ০১:০৬:১৪

 

মিশরের সিনাই উপত্যকায় নতুন করে বিকাশ ঘটেছে কুটির শিল্পের। তৈরি হচ্ছে ঔষধী গাছের বাগান। সেইন্ট ক্যাথরিন আশ্রমে এমন বাগান করেছে বেদুইনরা।
শত বছর ধরে সিনাই উপত্যকার পহাড়ের গায়ে এসব ঔষধী গাছ লাগিয়ে চলেছেন সেইন্ট ক্যাথরিন আশ্রমের যাজক আর স্থানীয় বেদুইনরা। চিকিৎসার জন্য বেদুইনরা প্রজন্ম থেকে প্রজন্ম নির্ভর করে আসছে এসব গাছের ওপরই। শুধু ওষুধই নয়, কিছু গাছের ফলও ব্যবহার হয় প্রসাধন হিসেবে।
এখানে এসে রাশিয়ার পর্যটক এলেনা মলকানোভা উচ্ছ্বসিত হয়ে জানিয়েছেন, এই সাবানটা দারুণ। এর সাথে সাধারণ রাসায়নিক সাবানের কোনো তুলনাই হয়না।
এখানে আছে ৪৭২ প্রজাতির গাছ। এগুলোর মধ্যে একশোরও বেশি ঔষধী গাছ আছে। স্থানীয় ডাক্তাররাও ব্যবহার করেন এসব গাছের ওষুধ। আব্দেল তাওয়াব নামে একজন চিকিৎসক বলছেন, আমিও এসব ঔষধী গাছ ব্যবহার করি। তবে আমি তো কোনো মসলা বিক্রেতা না যে লাইসেন্স বিহীন কোনো ওষুধ দিয়ে দেব। আমি সবসময় লাইসেন্স আছে এমন প্রাকৃতিক ওষুধই ব্যবহার করি। আর এর কোনো পার্শ্বপ্রতিক্রিয়া নেই।
গত কয়েক বছর ধরে গাছগুলোর অতিরিক্ত ব্যবহার আর বন্য গাধাদের উৎপাতে প্রায় ধ্বংসই হয়ে যাচ্ছিলো মহামূল্যবান বাগানটি। তবে তা পূনরুদ্ধারে নতুন উদ্যোগ নিয়েছে আশ্রম কর্তৃপক্ষ।
এ.এস/এস.এম.বি/০১.০০
বিভাগ: বিশ্বযোগ   দেখা হয়েছে ১৪৫৩ বার.

 

শেয়ার করুন :

 
মন্তব্য :