ব্রেকিং নিউজ:
বিশ্ব সঙ্গীত দিবস পালিত
সুমি/ সাঈফ    নভেম্বর ৩০, , সোমবার,     ১০:৩০:১২

 

বাংলাদেশসহ বিশ্বের আরো ১১০ টি দেশে, বর্ণিল সব আয়োজনের মধ্য দিয়ে দিনটি পালন করা হয়েছে বিশ্ব সঙ্গীত দিবস। ছোট-বড় মিলিয়ে, বিশ্বে অন্তত হাজার খানেক কনসার্ট হয়েছে দিনটিকে ঘিরে।
বহু বছর ধরেই ঐতিহ্যবাহী এ মিউজিক ফেস্টিভ্যালের আয়োজন করছে- ফ্রান্স। এভাবে, ১৯৮২ সালে এসে এ ফেস্টিভ্যাল ‘ওয়ার্ল্ড মিউজিক ডে’-তে রূপ নেয়। গান হতে হবে মুক্ত; সংশয়হীন- এই স্লোগানকে সামনে রেখেই বিশ্বের ১১০টি দেশ যোগ দেয় এই আন্দোলনে। ১৯ বছরের পথ পরিক্রমায় আন্তর্জাতিক মাত্রা পায় এটি। আর বিশ্বের বিভিন্ন দেশে, স্থানীয়ভাবে অথবা ফরাসি দূতাবাসের সহায়তায় জুনের ২১ তারিখে পালন করা হয় ‘ওয়ার্ল্ড মিউজিক ডে’।

ফরাসী ভাষায় ফেট ডে লা মিউজিক-আর বাংলায় বিশ্ব সংগীত দিবস । বিশ্বের ১১০টি দেশে ঘটা করে পালিত হচ্ছে উৎসবটি। তারই অংশ হিসেবে ফরাসী দূতাবাস ও আলিয়াস ফ্রসেসের যৌথ উদ্যোগে উৎসবটি পালিত হচ্ছে বাংলাদেশে। শিল্পকলা একাডেমীর জাতীয় নাট্যশালায় বুধবার দ্য ব্রিজ, বেনজিন, ওল্ড স্কুল এই আয়োজনে সঙ্গীত পরিবেশন করেন।
সংগীত মানে না কোন কাটা তারের বেড়া। ভাল লিরিক আর সুর ছুয়ে যায় যে কোনো সংবেদনশীল মানুষের মন, তা সে হোক না যে কোন ভাষার গান। বিশ্ব সংগীত দিবসের এই আয়োজন সে কথাই মনে করিয়ে দেয়।
পাশ্চাত্য মিউজিকের কীংবদন্তী বব ডিলান, জিম মরিসনের গানের পরিবেশনা যেমন ছিল, তেমনি ছিল লালন অথবা বাংলা ব্যান্ডের গানের পরিবেশনাও। নতুন প্রজন্মের শিল্পীদের কাছে গান শোনার পাশাপাশি জানা গেল তাদের সংগীত ভাবনা।
সব সংগীত প্রেমী মানুষের জন্য আলিয়াস ফ্রসেসের এই আয়োজন।।মন খুলে গান গাওয়া আর মন ভরে গান শোনার এই উৎসবে তাই দর্শক আগ্রহের কোন কমতি ছিল না।
বিশ্ব সংগীত, সেই সাথে আমাদের দেশীয় সংগীত দিনে দিনে আরও সমৃদ্ধ হোক-বিশ্ব সংগীত দিবসে এই চাওয়া ছিল অনুষ্ঠানে উপস্হিত সকলের।
বিভাগ: আনন্দযোগ   দেখা হয়েছে ৩৫৭৯ বার.

 

শেয়ার করুন :

 
মন্তব্য :