৭৫ বছরের পুরনো প্রেম !

বিশ্বযুদ্ধে আলাদা হয়েছিল দুজনার জীবন। ফ্রান্সের এক গ্রামে সেনাঘাঁটিতে থাকার সময় ফরাসি তরুণীর প্রেমে পড়েছিলেন তরুণ এক মার্কিন সেনা। যুদ্ধের দামামায় দুমাসের বল্গাহীন সেই প্রেমে আচমকাই আঘাত হেনেছিল বিচ্ছেদ। শেষ বেলায় এসে আবারও দেখা হলো দুজনার। সাঁই সাঁই করে পেরিয়েছে সময়। বয়সের রেখা পেরিয়ে আজ কেবলই সাবেক এক যোদ্ধা তিনি। দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধে পূর্ব ফ্রান্সের সেনা ঘাঁটির সময়টা তখন ১৯৪৪। চব্বিশ বছরের তরুণ মার্কিন সেনা কে টি রবিন্সের হৃদয়জুড়ে কেবলই অষ্টাদশী ফরাসি তরুণী জেনেই পিয়ারসন। দুমাসের মাথাতেই তাদের বিচ্ছেদ ঘটিয়েছিল যুদ্ধের ডামাডোল। পূর্ব ফ্রন্টের উদ্দেশে তাড়াহুড়ো করে ওই এলাকা ছাড়েন রবিন্স। কথা ছিল হয়তো ফিরবেন… কিন্তু বুকপকেটের ছবি হয়ে যায় সেই সব দিন। একে একে কেটেছে পচাত্তরটি বছর। ৯৮ বছরের বয়েসী এই যোদ্ধার সাক্ষাৎকার নিতে গিয়ে গল্পের এই ডালপালা খুঁজে পান কয়েকজন ফরাসি সাংবাদিক। কিছুদিন পরই দ্বিতীয় বিশ্বযুদ্ধের মোড় ঘুরিয়ে দেয়া নরম্যান্ডি ল্যান্ডিং এর ৭৫ বছর পূর্তি অনুষ্ঠানে ফ্রান্সে যান রবিন্স।
সাংবাদিকদের আয়োজনেই আবারও দেখা হয় জেনেই আর রবিন্সের। বিস্ময় আর স্মৃতির অতল থেকে জেগে ওঠে পুরনো প্রেম। রবিন্স একদিন ফিরবেই, ভাবতেন জেনেই। হৃদয়ভাঙা প্রশ্ন ছিল এতোট দেরিতে কেন? দীর্ঘ এই বিচ্ছেদে বিয়ে করেছেন দুজনই। তবে, কারো সঙ্গীই আর বেঁচে নেই। বিদায়ী চুম্বনে আবারো দেখা হবার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন এই প্রেমিক যুগল।

Leave a comment