ব্রেকিং নিউজ:
গণতন্ত্রের পথে মিসর
অনন্য নন্দিতা/রনি    জুন ২৫, ২০১২, সোমবার,     ০৫:৪৯:০০

 

নির্বাচনের ফল ঘোষণার পর আবারো উত্তাল কায়রো। তবে এবারের গণজোয়ার বিক্ষোভের নয়, উল্লাসের।মোবারকের ত্রিশ বছরের স্বৈরশাসনের অবসানের পর গণতন্ত্রের পথে এখন মিসর। গণতান্ত্রিক নির্বাচেন জয়ী হয়ে দেশটির নতুন প্রেসিডেন্ট এখন মুসলিম ব্রাদারহুড প্রার্থী মোহাম্মদ মুরসি। যে বিপ্লবত্তোর মিশরের মানুষের সকল চাওয়া পাওয়া এখন এই মুরসির কাছেই।
জয়ের ঘোষনা আসার পরই উল্লাসে ভাসে কায়রো থেকে আলেকজান্দ্রিয়া সহ গোটা মিসর। সাবেক স্বৈরশাসক মুবারক ক্ষমতা থেকে সরানোর পর, অন্তর্বতী সরকারের নানা পদক্ষেপে ক্ষুব্ধ মিসরের মানুষ আবারো তাহরির স্কোয়ারে আশ্রয় নিয়েছিলো। দ্বিধাবিভক্ত হয়ে পড়েছিল জাতি। সেই মানুষই আবার ক্ষমতায় এনেছে মুসলিম ব্রাদারহুডকে। আর এই মানুষের শক্তির প্রতি সম্মান জানানোর ঘোষনাই দিলেন মিসরের নতুন নেতা ড. মুরসি।
একটি গণতান্ত্রিক সরকারের স্বপ্ন নিয়ে, স্বৈরশাশক মোবারকের পতন ঘটিয়েছিলো মিসরের মানুষ। অন্তত মুসলিম ব্রাদারহুড সমর্থকদের বিশ্বাস, তাদের সেই স্বপ্ন আজ পূরন হবার পথে। তাই কেবল কায়রো নয়, গোটা মিসরে এখন বাধভাঙ্গা উচ্ছ্বাস।
মুসলিম ব্রাদার হুড নেতা মুরসীকে যারা ভোট দিয়েছেন, তারা বিশ্বাস করেন তিনিই গরিবের প্রকৃত বন্ধু। আর তিনিই মিসরের প্রতিটি মানুষের নেতা হবার যোগ্যতা রাখেন।
কেবল ইসলামি দল মুসলিম ব্রাদার হুড সমর্থকরাই নন, নিরপেক্ষ নাগরিকরাও এখন মুসরির ওপর আস্থা রাখতে চাইছেন। মুসরির নেতৃত্বে নতুন করে আগামির স্বপ্ন দেখতে চাইছেন। দেশকে তিনি একটি সম্মান জনক অবস্থানে নিয়ে যাবেন, এটাই মিসরের সাধারন মানুষের চাওয়া।

বিভাগ: বিশ্বযোগ   দেখা হয়েছে ৫৯২ বার.

 

শেয়ার করুন :

 
মন্তব্য :