ব্রেকিং নিউজ:
উত্তরাঞ্চলের ৫লাখ হেক্টর জমি সেচ সঙ্কটে পড়ার আশংকা
সৌমিত্র মজুমদার    জুলাই ০৪, ২০১২, বুধবার,     ০৫:০১:১৭

 

পানির স্তর নিচে নেমে যাওয়ায় উত্তরাঞ্চলের প্রায় পাঁচ লাখ হেক্টর জমি সেচ সঙ্কটে পড়ার আশংকা দেখা দিয়েছে। একই কারণে নলকূপে ঠিকমতো পানি উঠছে না। ফলে বরেন্দ্র অঞ্চলের কৃষি উৎপাদন এখন মারাত্মক বিপর্যয়ের পথে।
সম্প্রতি পানি সম্পদ মণ্ত্রনালয়ের এক জরিপে এ তথ্য উঠে এসেছে। জরিপটি জানায়, প্রতি বছর যে পরিমাণ পানি পাম্পের মাধ্যমে তোলা হচ্ছে, মাটির তলায় যাচ্ছে তার অনেক কম। জরিপে জানা গেছে, কৃষি কাজে মাটির তলার পানির ব্যবহার হচ্ছে ৯৮ শতাংশ, এবং নদী-হাওড়ের পানি ব্যবহার হচ্ছে মাত্র ২ শতাংশ। এভাবে মাটির তলার পানির যথেচ্ছ ব্যবহারে বৃহত্তর রাজশাহীর চাষাবাদ এখন বিপর্যয়ের পথে। বছরের পর বছর এই পানি ব্যবহার করায় জমির উর্বরতাও নষ্ট হচ্ছে। বিশেষজ্ঞরা বলছেন, ভূ-গর্ভের পানির ব্যবহার, খরচ বাড়াচ্ছে। আর এ কারণে সারাদেশের কৃষকদের প্রতিবছর ক্ষতি হচ্ছে প্রায় ২০ হাজার কোটি টাকা।

কৃষি জমিতে সেচ দেয়ার জন্য ১৯৮৪ সাল থেকে বরেন্দ্র বহুমূখী উন্নয়ন কর্তৃপক্ষ গভীর নলকূপের মাধ্যমে ভুগর্ভস্থ পানি উত্তোলন শুরু করে। রাজশাহী জনস্বাস্থ্য প্রকৌশল অধিদপ্তরের নির্বাহী প্রকৌশলী বাহার উদ্দিন মৃধা বলেন, অপরিকল্পিতভাবে পানি উত্তোলন করায় আর বৃষ্টিপাত কমে যাওয়ায় পানির স্তর নীচে নেমে গেছে।
এছাড়া বর্ষা মৌসুমে বৃষ্টির পানি সংরক্ষণ করে তা ব্যবহার করা হলে এসমস্যা কমে যাবে বলে মনে করেন রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক অধ্যাপক গোলাম সাব্বির সাত্তার।

এ.আর/১৭.০০

বিভাগ: দেশযোগ   দেখা হয়েছে ৫০১ বার.

 

শেয়ার করুন :

 
মন্তব্য :