ব্রেকিং নিউজ:
গ্রেপ্তারের ঝুঁকি নিয়েই সংবাদ সম্মেলন করতে চান অ্যাসাঞ্জ
নিউজ ডেস্ক    আগষ্ট ১৯, ২০১২, রবিবার,     ০৭:২৯:৪৯

 

গ্রেপ্তার হবার আশঙ্কা থাকলেও লন্ডনে ইকুয়েডর দূতাবাসের বাইরে এসে সাংবাদিকদের সাথে কথা বলার ইচ্ছে প্রকাশ করেছেন জুলিয়ান অ্যাসাঞ্জ। এদিকে ইকুয়েডরের প্রেসিডেন্ট রাফায়েল কোরেয়া বলেছেন, যুক্তরাষ্ট্রের হাতে তুলে দেয়া হবেনা এমন নিশ্চয়তা পেলে সুইডেনকে সহযোগিতা করবেন অ্যাসাঞ্জ।
জুলিয়ান অ্যাসাঞ্জ ইস্যুতে চলা কুটনৈতিক লড়াই এবার নতুন মোড় নিয়েছে। ইকুয়েডরের প্রেসিডেন্ট রাফয়েল কোরেয়া বলেছেন, জটিল এই পরিস্থিতিতে অ্যাসাঞ্জ সুইডেনকে সাহায্য করতে চান। সেক্ষেত্রে এই জটিলতার অবসান হতে পারে। তবে তার আগে একটি বিষয় নিশ্চিত হতে হবে। তিনি বলেছেন, ‘বিষয়টি হলো অ্যাসাঞ্জ যৌন হয়রানির মামলায় সুইডেনকে সহযোগিতা করবেন। তবে সুইডেনকে শতভাগ নিশ্চিয়তা দিতে হবে যে, তারা অ্যাসাঞ্জকে তৃতীয় কোন দেশের হাতে তুলে দেবেন না।’
সরাসরি যুক্তরাষ্ট্রের নাম না বললেও ইকুয়েডরের প্রেসিডেন্ট তৃতীয় দেশ বলতে এখানে যুক্তরাষ্ট্রের প্রতিই ইঙ্গিত করেছেন। জুলিয়ান আসাঞ্জও বরাবর এই আশঙ্কাতেই ভুগছিলেন।
সম্ভবত এই বিষয়টি জানাতেই লন্ডনের ইকুয়েডর দূতাবাসের বাইরে এসে কথা বলতে চান অ্যাসাঞ্জ। উইকিলিক্স কর্তৃপক্ষ বলছে লন্ডন পুলিশের হাতে গ্রেপ্তার হবার হুমকি সত্বেও রোববার লন্ডন সময় দুপুর ২টায় অ্যাসাঞ্জ দূতাবাসের বাইরে আসতে পারেন।
লন্ডন পুলিশ বলছে, দূতাবাসের বাইরে পাওয়া মাত্রই অ্যাসাঞ্জকে গ্রেপ্তার করবে পুলিশ। বাইরে আসার মধ্য দিয়ে অ্যাসাঞ্জ কি স্বেচ্ছায় পুলিশের হাতে ধরা দিতে যাচ্ছেন নাকি কুটনৈতিক সমঝোতার একটি সুযোগ সৃষ্টি করছেন সেটি এখনো স্পষ্ট নয়।
আর.এস/এস.এম.বি/০৭.৩০

বিভাগ: বিশ্বযোগ   দেখা হয়েছে ৫৬৩ বার.

 

শেয়ার করুন :

 
মন্তব্য :