ঢাকা ১৬ মে ২০২১, ২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৮

২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলার আসামিকে লুকিয়ে রেখেছিলেন মামুনুল

মহিম মিজান
প্রকাশ: ২৫ এপ্রিল ২০২১ ১৯:৩৭:২৬ আপডেট: ২৬ এপ্রিল ২০২১ ১৪:২২:০৪
২১ আগস্ট গ্রেনেড হামলার আসামিকে লুকিয়ে রেখেছিলেন মামুনুল

শেষ হয়েছে পুলিশের হাতে গ্রেপ্তার হেফাজত নেতা মামুনুল হকের রিমান্ড। সাত দিনের এই রিমান্ড শেষে আরেক গুরুত্বপূর্ণ তথ্য দিয়েছেন এই হেফাজত নেতা। ২০০৪ সালের ২১ আগস্ট শেখ হাসিনার সমাবেশে গ্রেনেড হামলা মামলার অন্যতম আসামি তাজ উদ্দীনকে নিজের মাদরাসায় লুকিয়ে রেখেছিলেন মামুনুল হক। পরে সেখান থেকেই পাকিস্তানে পালিয়ে যান তাজ উদ্দীন। পরের বছর মামুনুল নিজেও একমাস পাকিস্তানে ছিলেন। 

রিমান্ড শেষে সাংবাদিকদের এসব তথ্য জানান তেজগাঁও জোনের উপ পুলিশ কমিশনার হারুনুর রশিদ। তিনি বলেন, ধারণা করা হচ্ছে- পাকিস্তানে থাকাকালীন মামুনুল হকের সঙ্গে পাকিস্তানি জঙ্গি গোষ্ঠীর যোগাযোগ গড়ে উঠে। 

হারুনুর রশিদ জানান, ২০০৪ সালে একুশে আগস্ট গ্রেনেড হামলার পর মামুনুলের জামিয়া রাহমানিয়া মাদ্রাসায় লুকিয়ে ছিলো ফাঁসির দণ্ড পাওয়া আসামী মাওলানা তাজ উদ্দিন। পরে সেখান থেকেই দেশের বাইরে পালিয়ে যায় তাজ উদ্দিন। 

২০০৫ সালে মামুনুল হক একমাসেরও বেশি সময় পাকিস্তানে ছিলেন। মামুনুলের ভাই মাহফুজুল হকের বিরুদ্ধেও তদন্ত চলছে। অভিযোগ প্রমাণিত হলে তাকেও গ্রেপ্তার করা হবে। 

এদিকে দুপুরে এক অনুষ্ঠানে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী জানান, হেফাজত নেতারা তার সঙ্গে দেখা করলেও তাদের অপরাধকে ছাড় দেওয়ার সুযোগ নেই। 

হেফাজতের অভিযুক্ত নেতাদের গ্রেফতারে অভিযান অব্যাহত রয়েছে বলেও জানান স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী। 

মন্তব্য

এই নিবন্ধটি জন্য কোন মন্তব্য নেই.

আপনার মন্তব্য লিখুন