ঢাকা ৩০ নভেম্বর ২০২১, ১৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৮

নাগরিক হিসেবে আমি শঙ্কিত: পরিকল্পনা মন্ত্রী

একাত্তর অনলাইন ডেস্ক
প্রকাশ: ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১ ০০:২১:৪০ আপডেট: ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২১ ১১:৩৩:৫৫
নাগরিক হিসেবে আমি শঙ্কিত: পরিকল্পনা মন্ত্রী

ইভ্যালি, ই-অরেঞ্জ সহ নয়টি প্রতিষ্ঠানের ইকমার্স কেলেঙ্কারিতে নাগরিক হিসেবে নিজেকে শঙ্কিত বলে দাবি করেছেন পরিকল্পনা মন্ত্রী এম. এ. মান্নান। 

শনিবার (১৯ সেপ্টেম্বর) রাতে একাত্তর টেলিভিশনের নিয়মিত টকশো একাত্তর জার্নালে সঞ্চালক নূর সাফা জুলহাজের এক প্রশ্নের জবাবে এমনটা জানান পরিকল্পনা মন্ত্রী। 

তিনি বলেন, নাগরিক হিসেবে আমি সংকিত, যেভাবে মানুষের কাছে থেকে প্রতারণার মধ্য দিয়ে টাকা হাতিয়ে নেওয়া হয়েছে এটা কোনোভাবেই মেনে নেওয়া যায়না। 

মন্ত্রী জানান, এই প্রতরণা চক্র তো হুট করে একদিনে গড়ে উঠেনি, ধীরে ধীরে গড়ে উঠেছে সবার সামনেই। কিন্তু ই-কমার্স দেখভাল করার দায়িত্বে যাদের, তাদের কার্যকর তদারকি থাকলে সাধারণ গ্রহকদের এভাবে জিম্মি হতে হতো না এইসব প্রতারণামূলক ই-কমার্স প্লাটফর্মের হাতে। 

কার্যকর কোনো তদারকি, কোনো পদক্ষেপ না থাকায় ই-কমার্স প্লাটফর্মগুলো এমন বেপরোয়া হয়ে উঠতে পেড়েছে বলে মনে করেন এম. এ. মান্নান। 

আরও পড়ুন: শুধু ইভ্যালি নয়, প্রতারণা বাণিজ্যে আরো ৯ প্রতিষ্ঠান

তিনি আরও জানান, যখন বাংলাদেশের ই-কমার্স স্টার্টআপগুলোর দিকে তাকাই, তখন আশাবাদী না হবার কোনো কারণ থাকে না। বিদেশের আলিবাবা কিংবা অ্যামাজনের মতো হতে না পারুক, তবু স্ট্যান্ডার্ড কিছু হচ্ছে দেখলে আশাবাদী হয়ে উঠি, কিন্তু সেই স্টার্টআপগুলো যখন নানান লোভনীয় কায়দায় দেশের মানুষকে জিম্মি করে ফেলে, বিষয়টা হতাশাব্যঞ্জক।


একাত্তর/এসএ

মন্তব্য

এই নিবন্ধটি জন্য কোন মন্তব্য নেই.

আপনার মন্তব্য লিখুন