ঢাকা ৩০ নভেম্বর ২০২১, ১৬ অগ্রহায়ণ ১৪২৮

ফুটন্ত তেলে স্বামীর পুরুষাঙ্গ ঝলসে দিয়ে কারাগারে স্ত্রী

নিজস্ব প্রতিনিধি, একাত্তর
প্রকাশ: ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২১ ১৮:৩৭:৫৬ আপডেট: ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২১ ১৮:৩৭:৫৬
ফুটন্ত তেলে স্বামীর পুরুষাঙ্গ ঝলসে দিয়ে কারাগারে স্ত্রী

দ্বিতীয় বিয়ে করতে চাওয়ায় ঘুমন্ত স্বামীকে ফুটন্ত তেল দিয়ে গোপন অঙ্গ ঝলসে দিয়েছে স্ত্রী।

১৪ সেপ্টেম্বর (মঙ্গলবার) রাজধানীর কামরাঙ্গীচর এলাকায় ঘটনাটি ঘটে। দগ্ধ ঐ ব্যাক্তির নাম গোলাম মোস্তফা ব্যাপারী (২৮)। তিনি ইসলামবাগ এলাকায় একটি জুতার দোকানে কাজ করেন।

আহতের ভাই মোঃ ইসমাইল ব্যাপারী জানান, তার ভাই গোলাম মোস্তফা ব্যাপারী ৯ বছর আগে শারমিন আক্তারকে (২৬) বিয়ে করেন। এত বছরেও তাদের কোন সন্তান না হওয়ায় মোস্তফা আরেকটি বিয়ে করার কথা জানায় শারমিনকে। বিষয়টি প্রথমে মেনে না নিতে চাইলেও পরে মোস্তফার কাছে তিন লাখ টাকা দাবি করে শারমিন। টাকা নিয়ে অন্যত্র চলে যাবার কথাও জানান তিনি। কিন্তু মোস্তফা এত টাকা দিতে না পারার অপারগতা জানালে এনিয়ে দীর্ঘদিন দ্বন্দ্ব চলছিল তাদের।

১৪ সেপ্টেম্বর তাদের বর্তমান ঠিকানা কামরাঙ্গীচর কুরারঘাট এলাকার বাসায় সকালে ঘুমন্ত অবস্থায় স্ত্রী শারমিন আক্তার তেল গরম করে স্বামীর গোপনাঙ্গ ঝলসে দিয়ে পালিয়ে যায়। 

আরও পড়ুন: সড়ক তৈরির মাটি সংগ্রহ হচ্ছে সড়কের নিচ থেকেই

পরে দগ্ধ অবস্থায় মোস্তফাকে স্বজনরা উদ্ধার করে ঐদিনই স্যার সলিমুল্লাহ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করায়। বর্তমানে ঐ হাসপাতালেই চিকিৎসাধীন রয়েছেন দগ্ধ স্বামী। ক্ষত না শুকানো পর্যন্ত রোগীর পরবর্তী অবস্থা সম্পর্কে কিছু বলা যাবে না বলে জানিয়েছেন চিকিৎসকেরা।  

ঘটনার পরদিন (১৫ সেপ্টেম্বর) আহতের বাবা সিরাজুল ইসলাম ব্যাপারী বাদী হয়ে  কামরাঙ্গীচর থানায় হত্যার চেষ্টার অভিযোগ এনে মামলা দায়ের করেন। 

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে কামরাঙ্গীরচর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মোস্তফা আনোয়ার বলেন ভুক্তভোগীর বাবার মামলার পরিপ্রেক্ষিতে আমরা শারমিনকে গ্রেফতার করেছি। সে ১৬৪ ধারার জবানবন্দিতে অভিযোগ স্বীকার করেছে। বর্তমানে অভিযুক্ত স্ত্রী কারাগারে রয়েছেন।


একাত্তর/টিএ

মন্তব্য

এই নিবন্ধটি জন্য কোন মন্তব্য নেই.

আপনার মন্তব্য লিখুন