ঢাকা ০৭ ডিসেম্বর ২০২১, ২৩ অগ্রহায়ণ ১৪২৮

১৪ ছাত্রের চুলকাটা: আসি আসি করেও তিনি এলেন না, প্রতিবেদন জমা

নিজস্ব প্রতিনিধি, সিরাজগঞ্জ
প্রকাশ: ২২ অক্টোবর ২০২১ ১৬:৪৮:৩৯
১৪ ছাত্রের চুলকাটা: আসি আসি করেও তিনি এলেন না, প্রতিবেদন জমা

সিরাজগঞ্জের রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের ১৪ শিক্ষার্থীর মাথার চুল কেটে দেওয়ার ঘটনায় তদন্ত কমিটির কাছে দুই দফা সময় নিয়েছিলেন শিক্ষক ফারহানা ইয়াসমিন বাতেন। কিন্তু তিনি একবারও আসেননি। সর্বশেষ গতকাল বৃহস্পবার (২১ অক্টোবর) দুপুর ১টায় তদন্ত কমিটির কাছে উপস্থিত হয়ে বক্তব্য উপস্থাপন করার কথা ছিল তার। এবারও তিনি আসেননি। সেদিন বিকেল চার পর্যন্ত তার জন্য অপেক্ষা করার পর অগত্যা তদন্ত কমিটি প্রতিবেদন জমা দিয়েছেন।  

বৃহস্পতিবার বিকেলে পাঁচটায় রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্টার মো. সোহরাব আলীর কাছে তদন্ত প্রতিবেদন জমা দেন তদন্ত কমিটির পাঁচ সদস্য। 

অভিযুক্ত ফারহানা ইয়াসমিন বাতেন রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের সাংস্কৃকিত ঐতিহ্য ও বাংলাদেশ অধ্যয়ন বিভাগের শিক্ষক।

বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন রবীন্দ্র অধ্যয়ন বিভাগের চেয়ারম্যান ও পাঁচ সদস্যের তদন্ত কমিটির প্রধান লায়লা ফেরদৌস হিমেল।

তদন্ত কমিটির প্রধান লায়লা ফেরদৌস হিমেল  বলেন, আমরা শিক্ষিকা ফারহানা ইয়াসমিন বাতেনের জন্য বিকেল চার পর্যন্ত অপেক্ষা করলেও তিনি আসেননি এবং কোনো যোগাযোগও করেননি। পরে আমরা ভুক্তভোগী শিক্ষার্থী ও অন্যদের সঙ্গে কথা বলে এবং সিসি টিভি ফুটেজ দেখে পাওয়া তথ্যের ভিত্তিতে প্রতিবেদন তৈরি করে বিকেল পাঁচটার দিকে বিশ্ববিদ্যালয়ের রেজিস্টার মো. সোহরাব আলীর কাছে এই তদন্ত প্রতিবেদন জমা দিয়েছি। আমরা তদন্ত প্রতিবেদন জমা দিলেও সেটি এখনো খোলা হয়নি। শুক্রবার অনুষ্ঠিত সিন্ডিকেট সভায় সবার সামনে এটা খোলা হবে এবং উপস্থিত সিন্ডিকেট সদস্যদের আলোচনা ও মতামতের ভিত্তিতে তার বিরুদ্ধে পরবর্তী ব্যবস্থা নেওয়া হবে। তবে যেহেতু বেশিরভাগ সিন্ডিকেট সদস্য ঢাকাতে অবস্থান করেন তাই এই সিন্ডিকেট সভাটি ঢাকাতে অনুষ্ঠিত হতে পারে। শুক্রবার বিকেল চারটার দিকে ঢাকায় সিন্ডিকেট সভা অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা রয়েছে।

তিনি আরও বলেন, ফারহানা ইয়াসমিন বাতেনকে তিন দফায় তদন্ত কমিটি ডাকার পরও না এসে তিনি সময় চেয়ে বসেন। প্রথমে তাকে আর সময় দেওয়ার সিদ্ধান্ত না থাকলেও তিনি বার বার ই-মেইলে সময়ের আবেদন করায় তার এই আবেদনের প্রেক্ষিতে তদন্ত কমিটি তাকে দুই সপ্তাহ সময় দিয়ে ২১ অক্টোবর দুপুর একটায় উপস্থিত হয়ে বক্তব্য উপস্থাপনের জন্য নতুন সময় বেঁধে দিয়েছিল। তবুও তিনি আসেননি। প্রতিবেদন জমা দেওয়ার সময়ের বাধ্যবাধকতা থাকায় আমরা আজ তদন্ত প্রতিবেদন জমা দিয়েছি। 

আরও পড়ুন: গান গাইতে গিয়ে ধরা পড়ে ইকবাল

এ ব্যাপারে রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যের অতিরিক্ত দায়িত্বপ্রাপ্ত ট্রেজারার আব্দুল লতিফ বলেন,  তদন্ত কমিটি প্রতিবেদন জমা দিয়েছে। ওই শিক্ষকের বিরুদ্ধে অপরাধ প্রমাণ হলে ওই সভাতেই তার ব্যাপারে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। ঢাকার ধানমন্ডি এলাকায় অবস্থিত রবীন্দ্র বিশ্ববিদ্যালয়ের আবাসন ভবনে শুক্রবার বিকেলে সিন্ডিকেট সভা অনুষ্ঠিত হবে বলেও জানান তিনি। 

তবে কেন আজ তদন্ত কমিটির নিকট হাজির হলেন না সে বিষয়ে জানতে শিক্ষিকা ফারহানা ইয়াসমিন বাতেনের সাথে বারবার যোগাযোগ করার চেষ্টা করা হলেও তিনি তার মোবাইল ফোন রিসিভ করেননি।

একাত্তর/এসি

মন্তব্য

এই নিবন্ধটি জন্য কোন মন্তব্য নেই.

আপনার মন্তব্য লিখুন