ঢাকা ২৯ মে ২০২২, ১৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯

ইউক্রেন নিয়ে রুশ-মার্কিন প্রতিরক্ষা প্রধানদের প্রথম ফোনালাপ

একাত্তর অনলাইন ডেস্ক
প্রকাশ: ১৪ মে ২০২২ ১৮:২৬:০৫
ইউক্রেন নিয়ে রুশ-মার্কিন প্রতিরক্ষা প্রধানদের প্রথম ফোনালাপ

ইউক্রেনে রুশ সামরিক অভিযান শুরুর পর যুক্তরাষ্ট্র ও রাশিয়ার প্রতিরক্ষা প্রধানরা প্রথমবারের মতো টেলিফোনে কথা বলেছেন। তবে মার্কিন কর্মকর্তারা বলছেন, এই আলোচনা এখনও কোনো সমাধানের পথ দেখাতে পারেনি। 

রাশিয়ার প্রতিরক্ষা মন্ত্রী সের্গেই শোইগু ও মার্কিন প্রতিরক্ষা সচিব লয়েড অস্টিন এ আলোচনায় অংশ নেনে। 

বার্তা সংস্থা এপি ও জাপানের রাষ্ট্রীয় সংবাদমাধ্যম এনএইচকে'র খবরে বলা হয়েছে, শুক্রবার (১৩ মে) রুশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রীর সাথে আলাপের সময় ইউক্রেনে অবিলম্বে একটি যুদ্ধবিরতির আহ্বান জানিয়েছেন মার্কিন সচিব লয়েড অস্টিন।

মার্কিন প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের একজন ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তার ভাষ্যমতে, এ সময় অস্টিন দুই দেশের যোগাযোগের পথ উন্মুক্ত রাখা ওপর গুরুত্ব দিয়েছেন।

ওই কর্মকর্তা আরও বলেন, এ ফোনালাপের মাধ্যমে জটিল কোনো সমস্যার সমাধান হয়নি বা রুশরা যা বলছে বা করছে তাতে সরাসরি কোনো পরিবর্তন আসেনি।

অন্যদিকে রুশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় বলছে, অস্টিন ও শোইগু ইউক্রেন পরিস্থিতিসহ প্রাসঙ্গিক আন্তর্জাতিক নিরাপত্তা বিষয়াদি নিয়ে আলোচনা করেছেন। মস্কো বিষয়টি গুরুত্বের সাথে পর্যবেক্ষণ করছে।

এদিকে রাশিয়া শুক্রবার ঘোষণা দেয়, তাদের বিমান বাহিনী পুর্বাঞ্চলীয় লুহানস্ক অঞ্চলে ইউক্রেনীয় বাহিনীর উপর হামলা চালিয়েছে এবং খারকিভ অঞ্চলে একটি অস্ত্রাগার ধ্বংস করেছে।

আরও পড়ুন: পিকে হাওলাদারকে পশ্চিমবঙ্গের বর্ধমান থেকে গ্রেপ্তার

এ বিষয়ে মার্কিন প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের ঐ কর্মকর্তা বলেন, খারকিভ অঞ্চলের ইযিউম এবং দোনেৎস্ক অঞ্চলের স্লোভিয়ানস্কের মধ্যে ব্যাপক লড়াই চলছে।

তিনি এও বলেন, ইউক্রেনের কামানের গোলাবর্ষণ দোনেতস নদী পার হতে রুশ প্রচেষ্টাকে ব্যর্থ করে দেয়ার পাশাপাশি রুশদের আরও অগ্রসর হতে বাধা দিচ্ছে।

ইউক্রেন জানিয়েছে, ডনবাস অঞ্চলে প্রতিরোধের মুখে পড়েছে রুশ সেনারা। তবে, শুরুর সময়ের চেয়ে যুদ্ধক্ষেত্রে ইউক্রেনের অবস্থা এখন অনেক বেশি খারাপ বলে স্বীকার করেছে কিয়েভ।  


একাত্তর/আরবিএস  

মন্তব্য

এই নিবন্ধটি জন্য কোন মন্তব্য নেই.

আপনার মন্তব্য লিখুন