ঢাকা ১৬ মে ২০২১, ২ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৮

তরমুজের বাজারে অস্থিরতা

একাত্তর অনলাইন ডেস্ক
প্রকাশ: ০১ মে ২০২১ ১৩:৪৩:৪৮ আপডেট: ০১ মে ২০২১ ১৩:৪৩:৪৮

গরমের সাথে পাল্লা দিয়ে বাড়ছে তরমুজের দাম। গেল সপ্তাহে বেড়েছে কয়েক দফা। এমতাবস্থায় কেজি দরে তরমুজ বিক্রি এবং অধিক দামের কারণে রাজধানীসহ সারাদেশের মানুষের মধ্যে ব্যাপক ক্ষোভ বিরাজ করছে।

শনিবার (১ মে) রাজধানীর মোহাম্মদপুর সেকশন (বেড়িবাঁধ) ফলের আড়তে সরেজমিনে দেখা যায়, আড়তে কেজি দরে তরমুজ বিক্রি হচ্ছে না। বিক্রি হচ্ছে শ হিসেবে। আকার অনুসারে রয়েছে দামের তারতম্য। পাঁচ থেকে ছয় কেজি ওজনের ১০০ তরমুজ বিক্রি হচ্ছে ২০ থেকে ২২ হাজার টাকায়। এতে গড়ে কেজিপ্রতি তরমুজের দাম পড়ছে ৩০-৩৫ টাকা। কিন্তু এসব তরমুজই খুচরা বাজারে বিক্রি হচ্ছে ৫০-৬০ টাকা দরে।

এ বিষয়ে একজন আড়তদার একাত্তরকে বলেন, বরিশালের ১২ টাকার তরমুজ ঢাকায় এসে ৩০-৩৫ টাকা কেজিতে বিক্রি হচ্ছে, এটি ঠিক নয়। এতো কম দামে কোথাও তরমুজ নেই। আমরা আড়তে যে দামে বিক্রি করছি বরিশাল, পটুয়াখালী, খুলনাতে তার চেয়ে বেশি দামে তরমুজ বিক্রি হচ্ছে। আমরা যারা নিজ চালানে তরমুজ আনি, অনেক সময় তাদের চালানে লক্ষ টাকার মতোও ক্ষতি হয়।

পটুয়াখালী থেকে একাত্তর সংবাদদাতা আহসানুল কবির রিপন জানান, গত এক সপ্তাহ ধরে পটুখালীর স্থানীয় বাজারে আগের মতো তরমুজ নেই। কৃষকরা গতবারের চেয়ে এবার ভালো লাভ করেছেন। তবে, ক্রেতাদের বেশি দামেই তরমুজ কিনতে হচ্ছে। কৃষকের এক-দেড়শ টাকার তরমুজ ক্রেতাকে কিনতে হচ্ছে চার থেকে পাঁচশ টাকায়। পটুয়াখালীতে ৫০-৬০ টাকা কেজি দরেও তরমুজ বিক্রি হয়।

বরগুনায় তরমুজের মাঠ থেকে যুক্ত হয়ে সংবাদদাতা ইমরান হোসেন জানান, এবার বরগুনায় তরমুজের উৎপাদন বেশ ভালো হয়েছে। এছাড়া চাহিদা থাকায় ভালো দামও পাচ্ছেন কৃষকরা। নয় কেজির ওপরের বড় তরমুজগুলো বিক্রি হচ্ছে প্রতি ১০০ পিস ৩৫-৪০ হাজার টাকায়।

মন্তব্য

এই নিবন্ধটি জন্য কোন মন্তব্য নেই.

আপনার মন্তব্য লিখুন