ঢাকা ১৪ আগষ্ট ২০২২, ৩০ শ্রাবণ ১৪২৯

বিরল দু'মুখো সাপের দেখা মিললো দক্ষিণ আফ্রিকায়

একাত্তর অনলাইন ডেস্ক
প্রকাশ: ০২ জুলাই ২০২২ ২২:৫৬:০৬ আপডেট: ০২ জুলাই ২০২২ ২৩:০০:৪০
বিরল দু'মুখো সাপের দেখা মিললো দক্ষিণ আফ্রিকায়

যে প্রাণী দুটি বা তার অধিক মাথা নিয়ে জন্মায় গ্রীক ভাষায় তাদের 'পলিসেফলি' নামে ডাকা হয়। গ্রীক পুরাণের মতো বাস্তবেও এমন প্রাণীর দেখা মেলে পৃথিবীতে। তবে তা বিরল ঘটনা। স্তন্যপায়ী প্রাণীদের তুলনায় সরীসৃপদের মধ্যেই বিষয়টি বেশি দেখা যায়। এবার দক্ষিণ আফ্রিকার ডারবানের বন্য অঞ্চলে এমনই এক দুই মাথা বিশিষ্ট বিরল সাপের সন্ধান মিলেছে। 

সাপ উদ্ধারকারী নিক ইভান্স তার ফেসবুকে দুই মাথাওয়ালা সেই সাপের ছবিও প্রকাশ করেছেন। যা নজর কেড়েছে দুনিয়ার সাপ প্রেমীদের। 

নিক ইভান্স জানান, এই সাপের নাম সাউদার্ন ব্রাউন এগ-ইটার। এটি একটি নিরীহ প্রজাতির সাপ। 


ইভান্স আরও বলেন, বিরল সরীসৃপটির বিষয়ে এক ব্যক্তি তাকে তথ্য দেন। ওই ব্যক্তি তার বাগানে সাপটিকে খুঁজে পান। 

ডারবানের উত্তরে অবস্থিত ইডুয়ার্ডই শহরে বসবাসকারী ওই ব্যক্তি চায়নি যে কেউ এই অদ্ভুত প্রাণীটির ক্ষতি করুক, তাই তিনি এটিকে একটি বোতলে রেখে মিস্টার ইভান্সকে নিয়ে যেতে বলেন।

ইভান্স আরও জানান, এই সাপটিকে দেখার বিষয়টি খুবই অদ্ভুত ছিল। এটি একটি কিশোর, প্রায় এক ফুট লম্বা। সাপটির চলাচল করার বিষয়টিও বেশ আকর্ষণীয় ছিল। কখনও কখনও মাথাগুলো একে অপরের থেকে বিপরীত দিকে যাওয়ার চেষ্টা করছিল। অন্য সময়, একটি মাথা অন্যটির ওপর শুয়ে বিশ্রামও নেয়।  

এ সাপ উদ্ধারকারী জানান, সাপটি এখন যত্নে ও নিরাপদে রয়েছে।


ইভান্স বলছেন, সরীসৃপটি কীভাবে বেঁচে ছিল এতোদিন, এটাই সবচেয়ে অবাক করার বিষয়। এখন সাপটিকে ছেড়ে দেওয়ার "কোনো অর্থ নেই"।

আমি যতদূর জানি, তারা সাধারণত বেশি দিন বাঁচে না। এটি সবেমাত্র নড়াচড়া করতে পারে এবং যখন নড়াচড়া করে তখন অবিশ্বাস্যভাবে ধীরে ধীরে করে। ফলে যে কোনো শিকারী তাকে সহজেই ধরতে পারবে বলেও জানান তিনি। 

এদিকে ইভান্সের ফেসবুক পোস্টটি এরইমধ্যে ছড়িয়ে পড়েছে। সরীসৃপটিকে নিরাপদে নিয়ে যাওয়া হয়েছে শুনে ফেসবুকে মন্তব্যকারীরা খুশি হয়েছেন। 

একজন ব্যবহারকারী লিখেছেন, “খারাপ জিনিস। তাই কৃতজ্ঞ যে এটি নিরাপদ।" 

আরেকজন লিখেছেন, “কি আশ্চর্যজনক ছোট্ট প্রাণী!" 


একাত্তর/আরবিএস  

মন্তব্য

এই নিবন্ধটি জন্য কোন মন্তব্য নেই.

আপনার মন্তব্য লিখুন

বাতাস যখন ভয়ঙ্কর-২

বাতাস যখন ভয়ঙ্কর-২

১ মাস ১২ দিন আগে