ঢাকা ২৯ জুলাই ২০২১, ১৪ শ্রাবণ ১৪২৮

ছয় দফা দিবসে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে আওয়ামী লীগের শ্রদ্ধা

একাত্তর অনলাইন ডেস্ক
প্রকাশ: ০৭ জুন ২০২১ ১৩:১৩:৩৯ আপডেট: ০৮ জুন ২০২১ ১৬:০০:১১
ছয় দফা দিবসে বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে আওয়ামী লীগের শ্রদ্ধা

ঐতিহাসিক ছয় দফা দিবসে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানিয়েছে আওয়ামী লীগ।

দলের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদেরের নেতৃত্বে সোমবার (৭ জুন) ধানমন্ডি ৩২ নম্বরে অবস্থিত বঙ্গবন্ধুর প্রতিকৃতিতে এই শ্রদ্ধা জানানো হয়। পরে ওবায়দুল কাদের সাংবাদিকদের বলেন, ঐতিহাসিক ছয় দফা ছিল মূলত স্বাধীনতা আন্দোলনের মূলভিত্তি। স্বাধীনতা আন্দোলনের ধারাবাহিকতায় যারা বিশ্বাস করে না তারা দেশের স্বাধীনতায়ও বিশ্বাস করে না।

তথ্য মন্ত্রী ড. হাছান মামুদ বলেন, দু:জনকভাবে স্বাধীনতার ৫০ বছর পরেও বিএনপি স্বাধীনতা বিরোধী শক্তিকে নিয়ে রাজনীতি করছে।  তিনি আশা করেন আগামীতে সরকার ও বিরোধী উভয় দলেই স্বাধীনতার পক্ষের শক্তি থাকবে।

১৯৬৬ সালে লাহোরে বিরোধীদলগুলোর এক সম্মেলনে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক হিসেবে শেখ মুজিবুর রহমান ৬ দফা দাবি পেশ করেন। যেখানে তিনি কেন্দ্রের দায়িত্বে শুধু প্রতিরক্ষা ও বৈদেশিক সর্ম্পকের বিষয়টি রেখে যৌথ রাষ্ট্রীয় ব্যবস্থার সরকার পদ্ধতির  প্রস্তাব করেন। পূর্ব ও পশ্চিমের জন্য আলাদা মুদ্রা ব্যবস্থা, অঙ্গরাজ্যের হাতে বৈদেশি মুদ্রা অর্জন, রাজস্ব আদায়,  এবং আধা সামরিক বাহিনী গঠনের ক্ষমতা দেয়ার দাবি করেন বঙ্গবন্ধু। 

এই দাবি জনগণের মাঝে ছড়িয়ে দিতে ৩৫ দিনে ৩২ টি জনসভায় বক্তৃতা করেন শেখ মুজিব। ৬ দফার পক্ষে জনমত প্রবল হতে থাকে, ৩ মাসে ৮ বার গ্রেফতার হন বঙ্গবন্ধু। এই সময়ই জীবনের সব চেয়ে র্দীঘ ৩৩ মাস কারাগারে ছিলেন তিনি। সেই সময় আওয়ামী লীগের প্রায় সব নেতাকে গ্রেফতার করা হয়।  

আগরতলা ষড়যন্ত্র মামলা দিয়ে বঙ্গবন্ধুকে সরিয়ে দেয়ার ষড়যন্ত্র করে পাকিস্তানের শাসকরা। 

কিন্তু আন্দোলনের ধারাবাহিকতায় মাঠে নামে ছাত্ররা। ছাত্রদের ১১ দফা দাবির আন্দোলনে ৬৯ এর ঐতিহাসিক গণঅভ্যুত্থানে আইয়ুব সরকারের পতন হয়। জেল থেকে মুক্তি হোন শেখ মুজিব। ঐতিহাসিকদের মতে আওয়ামী লীগ নেতারাও ৬ দফার আন্দোলনকে স্বাধীনতা অন্যতম ভিত্তি ও ধারাবাহিকা বলে মনে করেন।

৬ দফা দিবস উপলক্ষ্যে সকাল ৯টায় ধানমন্ডী ৩২ নম্বরে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে প্রধানমন্ত্রীর শেখ হাসিনার পক্ষে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন আওয়ামী লীগের কেন্দ্রী নেতারা। পরে দলের পক্ষ থেকেও শ্রদ্ধা জানানো হয়।  

করোনা মহামারীর কারণে আলাদা আলাদা সময়ে গিয়ে দলের সহযোগী সংগঠন ছাত্রলীগ, যুব লীগ, স্বেচ্ছাসবেক লীগ, যুব মহিলা লীগ, কৃষক লীগের পক্ষ থেকে শ্রদ্ধা জানানো হয়।  


একাত্তর/এআর

মন্তব্য

এই নিবন্ধটি জন্য কোন মন্তব্য নেই.

আপনার মন্তব্য লিখুন