ঢাকা ১৮ মে ২০২২, ৪ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৯

বিল গেটসের বুকশেলফ থেকে

একাত্তর অনলাইন ডেস্ক
প্রকাশ: ২৩ জুন ২০২১ ১৬:০৭:৫৯ আপডেট: ২৩ জুন ২০২১ ১৬:১৩:০৯
বিল গেটসের বুকশেলফ থেকে

বিশ্বের শীর্ষ ধনীদের একজন বিল গেটস। নিজের প্রতিষ্ঠান মাইক্রোসফট আর পৃথিবীব্যাপী নানা দাতব্য কাজের মাঝেও তার নিয়মিত বই পড়ার কথা অনেকেরই জানা। নিজের মস্তিষ্ককে সচল রাখার জন্য বছরে গড়ে পঞ্চাশটি বই পড়েন, এমনটাই বিভিন্ন সময় বিভিন্ন সাক্ষাৎকারে তিনি বলেছেন। এমনকি, সারাদিনের ব্যস্ততার পরও দিনে অন্তত এক ঘণ্টা শুধু বই পড়ার জন্য বরাদ্দ রাখেন এই উদ্যোক্তা ও ব্যবসায়ী। 

তবে শুধু বই পড়েই ক্ষান্ত হন না গেটস, প্রতি বছর কী কী বই পড়বেন তার তালিকাও নিজের ব্যক্তিগত ব্লগে শেয়ার করেন, যেন যে কেউ আগ্রহী হলে এই বইগুলো পড়তে পারেন। এবছরও তার গ্রীষ্মকালীন বইয়ের তালিকা দিয়েছেন তিনি, যেখানে রয়েছে পাঁচটি বইয়ের নাম।

জেনে নিন আজকাল কী পড়ছেন পৃথিবীর অন্যতম বুদ্ধিমান ও সফল এই ব্যক্তি:

লাইটস আউট: প্রাইড, ডিলিউশন এন্ড দ্যা ফল অফ জেনারেল ইলেক্ট্রিক 

টমাস গ্রিটা 

জেনারেল ইলেকট্রিক কোম্পানির পতন নিয়ে লেখা এই বই নিয়ে গেটস বলেছেন, কোম্পানিটির নেতৃস্থানীয় ব্যক্তিদের ভুলগুলো চোখে আঙুল দিয়ে দেখিয়ে দেওয়া হয়েছে এই বইয়ে। একটি বিশাল এবং সফল কোম্পানি কিভাবে ব্যর্থ হয়ে যেতে পারে তা দেখে নেতৃত্বের ভূমিকায় থাকা ব্যক্তিরা অনেক কিছু শিখতে পারবেন বলে মনে করেন বিল গেটস। 

আন্ডার অ্যা হোয়াইট স্কাই: দ্যা ন্যাচার অফ দ্যা ফিউচার

এলিজাবেথ কোলবার্ট

মানুষ আর প্রকৃতির বিপরীত অবস্থানের এক দারুণ বর্ণনা আছে এই বইয়ে। জীন প্রকৌশল আর ভূ-প্রকৌশল ব্যবহার করে জলবায়ু পরিবর্তন রোধের যে প্রচেষ্টা, তার বিভিন্ন কৌশল নিয়ে লেখা এই নন-ফিকশন বইটিকে উপভোগ্য বলছেন গেটস। 

অ্যা প্রমিসড ল্যান্ড

বারাক ওবামা

সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্টের প্রথম আত্মজীবনী 'অ্যা প্রমিসড ল্যান্ড'। হোয়াইট হাউসে তার অভিজ্ঞতা নিয়ে লেখা এই বইয়ে তিনি বর্ণনা করেছেন, চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত গ্রহণকারী হিসেবে তার সময়টা কতটা একাকিত্বে ভরপুর ছিল। ২০১১ সালে ওসামা বিন লাদেনকে হত্যার মিশনের সময়ে যেভাবে ওবামা পুরো দেশ ও তার পরিবারকে পরিচালনা করেছেন তার বর্ণনাকে 'মুগ্ধকর' বলেছেন বিল গেটস।

দ্যা ওভারস্টোরি

রিচার্ড পাওয়ারস

এই তালিকার একমাত্র ফিকশন বই দ্যা ওভারস্টোরি। নয়জন মানুষের জীবনের সাথে গাছের সম্পর্ক নিয়ে লেখা এই বইটিকে বিল গেটস বলেছেন, এটি তার পড়া অন্যতম 'অদ্ভুত' বই। যদিও এখানে গাছপালা রক্ষার ক্ষেত্রে কিছুটা চরম দৃষ্টিভঙ্গি দেখানো হয়েছে, তারপরও বিল বলেছেন বইটি তার জানার আগ্রহকে আরও বাড়িয়ে দিয়েছে। 

অ্যান এলিগেন্ট ডিফেন্স: দ্যা এক্সট্রাঅর্ডিনারি নিউ সায়েন্স অফ দ্যা ইমিউন সিস্টেম: অ্যা টেল অফ ফোর লাইভস 

ম্যাট রিচেল 

মানুষের শরীরের রোগ প্রতিরোধ ব্যবস্থা নিয়ে করোনা মহামারির আগে লেখা এই বইটি কীভাবে কোভিড-১৯ কে থামানো যেতে পারে তা বুঝতে সাহায্য করবে, বলেছেন বিল। বইটির বিষয়বস্তু 'সহজবোধ্য অথচ খুবই আকর্ষণীয়', এমনটাই বলেছেন তিনি। 


একাত্তর/এসজে

মন্তব্য

এই নিবন্ধটি জন্য কোন মন্তব্য নেই.

আপনার মন্তব্য লিখুন