ঢাকা ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১২ আশ্বিন ১৪২৮

পেগাসাসের অপব্যবহার বন্ধে হাউস অব লর্ডসে বিতর্ক

তানভীর আহমেদ, যুক্তরাজ্য
প্রকাশ: ২৪ জুলাই ২০২১ ১৩:৫৯:০২ আপডেট: ২৫ জুলাই ২০২১ ১১:০০:৩০
পেগাসাসের অপব্যবহার বন্ধে হাউস অব লর্ডসে বিতর্ক

পেগাসাস স্পাইওয়্যার ব্যবহার করে ফোনে আড়িপাতা বন্ধে উদ্যোগ নিতে ব্রিটিশ সরকারকে আহ্বান জানিয়েছেন বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত লর্ড সভার সদস্য ব্যারোনেস পলা মঞ্জিলা উদ্দিন।

ব্যারোনেস উদ্দিনসহ বিশ্বের ৫০ হাজার বিশিষ্ট নাগরিক, সাংবাদিক, রাজনীতিবিদ ও রাষ্ট্র প্রধানরা রয়েছেন নজরদারির তালিকায়। 

সাইবার বিশেষজ্ঞরা বলছেন, টেলিফোনে এই ধরনের আড়িপাতা ১৯৪৮ সালের জাতিসংঘের ব্যক্তির গোপনীয়তা সংক্রান্ত ঘোষণার সুস্পষ্ট লঙ্ঘন।

ব্রিটেনের শীর্ষ দৈনিক দ্যা গার্ডিয়ানের অনুসন্ধানে বেরিয়ে এসেছে পেগাসাস স্পাইওয়ার ব্যবহার করে আড়ি পাতা হয়েছে বিশ্বের প্রায় ৪৫টি দেশের প্রায় ৫০ হাজার টেলিফোন নম্বরে।

বাংলাদেশি বংশোদ্ভূত লর্ড সভার সদস্য ব্যারোনেস পলা মঞ্জিলার নামও রয়েছে এই তালিকায়। ২০১৭-১৯ সালের তালিকায় নাম রয়েছে প্রথম এই মুসলিম লর্ড সভার সদস্যের।

ব্যারোনেস উদ্দিন ছাড়াও প্রায় চার শতাধিক ব্রিটিশ নাগরিকের ফোন নম্বর নজরদারিতে সংযুক্ত আরব আমিরাতের ভূমিকা রয়েছে বলে প্রমাণ পেয়েছে গার্ডিয়ান।

পেগাসাস স্পাইওয়ার নিয়ে হাউজ অব লর্ডসের বিতর্কে ব্রিটিশ নাগরিকদের উপর এই ধরনের সাইবার হামলা বন্ধে সরকার নিশ্চয়তা দিতে না পারলে রাষ্ট্রের সার্বভৌমত্ব ক্ষুণ্ন হবে বলে দাবি করেন ব্যারোনেস পলা উদ্দিন।

জবাবে, কমনওয়েলথ মন্ত্রী লর্ড আহমেদ এই ধরনের নজরদারি প্রতিরোধে ব্রিটিশ সরকার কাজ করবে বলে আশ্বস্ত করেন।

যদিও পেগাসাস স্পাইওয়্যার নির্মাতা ইসরাইলি প্রতিষ্ঠান এন.এস.ও গ্রুপ দাবি করেছে, তারা শুধুমাত্র সরকারি প্রতিষ্ঠানের কাছে এই ধরনের স্পর্শকাতর সফটওয়্যার বিক্রি করে থাকে।

১৯৪৮ সালে ইউএন ডিক্লারেশন ও ১৯৫৩ সালের ইইউ কনভেনশন ব্যক্তির স্বাধীনতা ও গোপনীয়তার নিরাপত্তা দিয়েছে। তাহলে পেগাসাস স্পাইওয়ার কি এই কনভেনশনের বাইরে? এমন প্রশ্নের জবাবে বাংলাদেশি সাইবার নিরাপত্তা বিশেষজ্ঞ জামাল আহমেদ বলেন, পেগাসাস কোন আইনের বাইরে নয়।

আরও পড়ুন: পেগাসাস কেলেঙ্কারি সামলাতে ‘টাস্ক ফোর্স’ গঠন ইসরাইলের

এদিকে, পেগাসাস স্পাইওয়ারের অপব্যবহার তদন্ত করার ঘোষণা দিয়েছে ইসরাইল।

একাত্তর/আরএ

মন্তব্য

এই নিবন্ধটি জন্য কোন মন্তব্য নেই.

আপনার মন্তব্য লিখুন