ঢাকা ১৯ সেপ্টেম্বার ২০২১, ৪ আশ্বিন ১৪২৮

আলু নিয়ে হিমাগার ও পাইকারি ব্যবসায়ীদের ঘুম হারাম

শাহজাহান আলী বাবু, বগুড়া
প্রকাশ: ১৪ সেপ্টেম্বার ২০২১ ১৫:০১:৪৭
আলু নিয়ে হিমাগার ও পাইকারি ব্যবসায়ীদের ঘুম হারাম

বগুড়ার হিমাগার এবং পাইকারি বাজারে কমে গেছে আলুর দাম। এতে আলু নিয়ে বিপাকে পরেছেন ব্যবসায়ীরা। অনেকে ভাড়া শোধ করার ভয়ে হিমাগারে আলু নিতেই আসছেন না। 

এই পরিস্থিতিতে হিমাগার মালিকরা দাবি জানিয়েছেন, সরকারিভাবে ন্যায্য দামে আলু বিক্রির। তা না হলে বড় ধরনের লোকসানে পড়তে হবে তাদের।

গেলো মৌসুমে ব্যবসায়ীরা যখন হিমাগারে আলু রেখেছিলেন তখন প্রতি কেজিতে খরচ হয়েছিলো ১৭ থেকে ১৮ টাকা। 

কিন্তু এখন সেই আলু হিমাগার থেকে বিক্রি হচ্ছে ১২ টাকায়। এতে পূঁজি হারানোর অপেক্ষায় অনেক ব্যবসায়ী এবং কৃষক।

এখন ভাড়া পরিশোধের ভয়ে অনেকেই আলু বিক্রি না করছেন না। এতে আলু পচে যাচ্ছে, গজাচ্ছে শেকড়। যা তৈরি করছে নতুন সমস্যার। 

হিমাগারে রাখা আলু না নেয়ায় বিপাকে পড়েছেন হিমাগার মালিকেরাও। তারা জানান, সামনে আলুর মৌসুম। এখন হিমাগার ফাঁকা না হলে নতুন আলু রাখা সম্ভব হবে না। 

ক্ষতি কাটাতে তাই রেশনিংয়ের মাধ্যমে আলু বিপণনের দাবি জানিয়েছেন ব্যবসায়ীরা ও হিমাগার মালিকেরা। 

বগুড়া-জয়পুরহাটের ৫৫টি হিমাগারে পাঁচ লাখ মেট্রিক টন আলু সংরক্ষিত রয়েছে। এখন পর্যন্ত মজুদ আলুর মাত্র ১০ ভাগ বিক্রি হয়েছে জানিয়েছে হিমাগার কর্তৃপক্ষ।



একাত্তর/এআর

মন্তব্য

এই নিবন্ধটি জন্য কোন মন্তব্য নেই.

আপনার মন্তব্য লিখুন