ঢাকা ২৩ অক্টোবর ২০২১, ৮ কার্তিক ১৪২৮

কন্যার জন্মদিনে প্রিমিয়ার হচ্ছে 'মুজিব আমার পিতা'

একাত্তর অনলাইন ডেস্ক
প্রকাশ: ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২১ ১৭:৫৪:১৭ আপডেট: ২৬ সেপ্টেম্বর ২০২১ ২১:২৫:০৫
কন্যার জন্মদিনে প্রিমিয়ার হচ্ছে 'মুজিব আমার পিতা'

জাতির জনক বঙ্গবন্ধুর শেখ মুজিবুর রহমানের শৈশব কৈশর ও তার জীবনের নীতি আদর্শকে কেন্দ্র করে নির্মিত দেশের প্রথম পূর্ণদৈর্ঘ্য অ্যানিমেশন চলচ্চিত্র ‘মুজিব আমার পিতা’ মুক্তি পাচ্ছে ১ অক্টোবর। এর আগে ২৮ সেপ্টেম্বর প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার ৭৫তম জন্মদিন উপলক্ষ্যে রাজধানীর বসুন্ধরা সিটির স্টার সিনেপ্লেক্সে হবে প্রিমিয়ার।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার লেখা বই ‘শেখ মুজিব আমার পিতা’ অবলম্বনে তৈরি করা হয়েছে পূর্ণদৈর্ঘ্য দ্বিমাত্রিক (টু-ডি) অ্যানিমেশন চলচ্চিত্রটি। 

চলচ্চিত্রটির নির্মাতা প্রতিষ্ঠান প্রোলেন্সার স্টুডিওর পক্ষ থেকে বলা হয়েছে— ১৬ সেপ্টেম্বর চলচ্চিত্রটি সেন্সর ছাড়পত্র পেয়েছে। ঢাকাসহ সারা দেশের বিভিন্ন সিনেপ্লেক্সে ও সিনেমা হলে চলচ্চিত্রটি মুক্তি পাবে।

অ্যানিমেটেড চলচ্চিত্রটি তৈরি করতে প্রায় দুই বছর ধরে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের চারুকলা অনুষদের প্রাক্তন এবং বর্তমান শিক্ষার্থীদের একটি দল কাজ করেছে। ১০০ জনেরও বেশি শিল্পী চলচ্চিত্রটি নির্মাণে অবদান রেখেছেন। ব্যাপক গবেষণা এবং চিত্রনাট্য তৈরির পর গত বছরের জানুয়ারিতে এর প্রযোজনার কাজ শুরু হয়।

রোববার (২৬ সেপ্টেম্বর) চলচ্চিত্রটির টেকনিক্যাল শো শেষে সংবাদ সম্মেলনে যোগাযোগ প্রযুক্তি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক বলেন, 

প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিনে এটি হবে দেশের সব শিশু-কিশোর ও তরুণদের জন্য একটি উপহার। কেননা বঙ্গবন্ধুকে শিশু-কিশোররা অ্যানিমেশন চলচ্চিত্রের মধ্যে দিয়ে জানবে, এর থেকে ভালো আর কী হতে পারে।

টিকেটের বিষয়ে প্রতিমন্ত্রী জানান, টিকিটের মাধ্যমে উন্মুক্ত করার ক্ষেত্রে এ চলচ্চিত্রে টিকিটের মূল্যে ৫০ শতাংশ ছাড় থাকবে। এরপর আমরা আশা করছি এটি দুই থেকে তিন মাসের মধ্যে বিশ্বের বিভন্ন স্থানে ছড়িয়ে দিতে পারবো এবং তারপর এটি বিভিন্ন মিডিয়াতে প্রচারের ব্যবস্থা করা হবে। 

এছাড়াও তিনি বলেন, বিভিন্ন মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমে এটি সারাদেশে প্রদর্শনীর ব্যবস্থা করা হবে। নতুন প্রজন্মের শিশু-কিশোরদের কাছে বঙ্গবন্ধুর জীবনের গল্প পৌঁছে দেওয়া আমাদের দায়িত্ব। আমার মনে হয় ওদেরকে জানানোর জন্য অ্যানিমেশনের চেয়ে ভালো মাধ্যম আর হতে পারে না। একইভাবে বঙ্গবন্ধুর ছেলেবেলা সম্পর্কে তার কন্যা প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার চেয়ে ভালো আর কেউ বলতে পারবে না। এ দুইয়ের যুগলবন্দি করা হয়েছে চলচ্চিত্রটিতে।

পলক বলেন, এ চলচ্চিত্রটি নির্মাণ করতে গিয়ে আমরা অনুভব করেছি যে এ ধরনের কাজ আরও করা যায়। কেননা ৪৮ মিনিটের এ সিনেমাটিতে শেখ মুজিবুর রহমানের জীবনের একটি অংশই আমরা ফুটিয়ে তুলতে পেরেছি। তাই এর পর ‘মুজিব ভাই’ নামে নতুন আরও একটি চলচ্চিত্র ও ‘খোকা’ নামে ১০ পর্বের অ্যানিমেটেড ফিল্ম তৈরি করা হবে বলে আশা করছি।

চলচ্চিত্রটিতে বঙ্গবন্ধুর শৈশব, কৈশোর, যৌবন, রাজনৈতিক কর্মজীবন এবং তার জীবনের অন্যান্য দিক তুলে ধরা হয়েছে। মূলত বঙ্গবন্ধুর শৈশব থেকে শুরু করে ১৯৫২ সালের ভাষা আন্দোলন পর্যন্ত সময়কে কেন্দ্র করে তৈরি করা হয়েছে চলচ্চিত্রটি।

আরও পড়ুন: সোমবার ফাইজারের আরো ২৫ লাখ টিকা আসছে

এছাড়া প্রধানমন্ত্রীর জন্মদিনে প্রিমিয়ার হওয়া অ্যানিমেটেড চলচ্চিত্রটি দেখতে তথ্য ও সম্প্রচারমন্ত্রী ড. হাছান মাহমুদ এবং আইসিটি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলকসহ আরও অনেকের স্টার সিনেপ্লেক্সে প্রিমিয়ার শোতে অংশ নেওয়ার কথা রয়েছে।

চলচ্চিত্রটি পরিচালনা করেছেন সোহেল মোহাম্মদ রানা। তিনি বলেন, আমরা যখন কাজ শুরু করেছিলাম, অনেকে বিশ্বাসই করতে পারেননি, বাংলাদেশে বসে ফিচার-লেংথ অ্যানিমেশন চলচ্চিত্র নির্মাণ করা সম্ভব। কিন্তু আমরা বিশ্বাস হারাইনি। সিনেমাটি নির্মাণ করতে গিয়ে আমাদের অভিজ্ঞতা হলো— এখনই হয়তো বিশ্বমানের অ্যানিমেশন বানানো সম্ভব নয়। তবে যাত্রাটা আমরা শুরু করেছি।


একাত্তর/এসএ

মন্তব্য

এই নিবন্ধটি জন্য কোন মন্তব্য নেই.

আপনার মন্তব্য লিখুন