সেকশন

শুক্রবার, ২৪ মে ২০২৪, ৯ জ্যৈষ্ঠ ১৪৩১
 

ইরানের সঙ্গে বাণিজ্যিক সম্পর্ক জোরদার করছে পাকিস্তান

আপডেট : ২৫ এপ্রিল ২০২৪, ১০:৫৫ এএম

যুক্তরাষ্ট্রের নিষেধাজ্ঞার হুমকি উপেক্ষা করে ইরানের সঙ্গে বাণিজ্যিক সম্পর্ক জোরদার করছে পাকিস্তান। দুই দেশের মধ্যে মুক্ত বাণিজ্য চুক্তি-এফটিএ চূড়ান্তকরণ, জ্বালানি ও বিদ্যুৎখাতে সহায়তা বৃদ্ধিসহ নিয়মিত উচ্চ পর্যায়ের বৈঠকের ঘোষণা দিয়েছে ইসলামাবাদ ও তেহরান।

বুধবার ইরানি প্রেসিডেন্টের তিন দিনের পাকিস্তান সফর শেষে এক যৌথ বিবৃতিতে এসব কথা জানানো হয়েছে।

ইরানি প্রেসিডেন্ট ইব্রাহিম রাইসির পাকিস্তান সফরকালে দুই দেশের মধ্যে সম্পর্ক ও বাণিজ্য বৃদ্ধি সংক্রান্ত আটটি চুক্তি সই হয়েছে। তবে ইরানের সাথে পাকিস্তানের এমন উষ্ণ সম্পর্ক ভালোভাবে নিচ্ছে না যুক্তরাষ্ট্র। ইরানের সাথে ব্যবসায়িক চুক্তি সই করায় পাকিস্তানের ওপর নিষেধাজ্ঞা আরোপের হুমকিও দিয়েছে তারা।

তবে ওয়াশিংটনের এই হুমকিকে খুব একটা আমলে নিচ্ছে না পাকিস্তান ও ইরানের সরকার। এক যৌথ বিবৃতিতে তারা জানিয়েছে, উভয় পক্ষই দ্রুত এফটিএ চূড়ান্ত করতে, বার্ষিক দ্বিপাক্ষিক রাজনৈতিক পরামর্শ ও জয়েন্ট বিজনেস ট্রেড কমিটির পরবর্তী সেশনের পাশাপাশি শিগগির যৌথ অর্থনৈতিক কমিশনের ২২তম সভা আয়োজন করতে সম্মত হয়েছে।

দুই প্রতিবেশী নিয়মিত উচ্চ পর্যায়ের সফর বিনিময়ের মাধ্যমে পারস্পরিক মিথস্ক্রিয়া বাড়াতে সম্মত হয়েছে।

বিবৃতিতে বলা হয়েছে, দুই দেশের সম্মিলিত সীমান্ত বাজার স্থাপন, অর্থনৈতিক মুক্ত অঞ্চল এবং নতুন সীমান্ত খোলাসহ যৌথ উন্নয়নমুখী অর্থনৈতিক প্রকল্পের মাধ্যমে ‘শান্তির সীমান্ত’ থেকে ‘সমৃদ্ধির সীমান্তে’ রূপান্তরিত করতে প্রতিশ্রুতি দিয়েছে।

এছাড়া, বিদ্যুৎ বাণিজ্য, পাওয়ার ট্রান্সমিশন লাইন এবং ইরান-পাকিস্তান গ্যাস পাইপলাইন প্রকল্পসহ জ্বালানি খাতে সহযোগিতার গুরুত্ব পুনর্ব্যক্ত করেছে। আগামী পাঁচ বছরের মধ্যে দ্বিপাক্ষিক বাণিজ্যের পরিমাণ এক হাজার কোটি ডলারে উন্নীত করার লক্ষ্য নির্ধারণ করেছে দুই দেশ।

বিবৃতিতে আরও বলা হয়েছে, কিছু দেশে ‘ইসলাম বিদ্বেষের ক্রমবর্ধমান ঘটনা, পবিত্র কোরআন এবং পবিত্র প্রতীকের অবমাননার’ নিন্দা জানিয়েছে ইরান ও পাকিস্তান। একইসাথে, গাজায় অবিলম্বে নিঃশর্ত যুদ্ধবিরতিসহ ইসরাইলি সরকারের অপরাধের জবাবদিহিতা নিশ্চিতের আহ্বান জানিয়েছে তারা।

একাত্তর/আরএ
জন্মস্থান মাশহাদে চিরনিদ্রায় শায়িত হলেন হেলিকপ্টার দুর্ঘটনায় নিহত ইরানের প্রেসিডেন্ট ইব্রাহিম রাইসি। কয়েকদিনের আনুষ্ঠানিকতা শেষে বৃহস্পতিবার ইরানের উত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় এই শহরে ইমাম আলী আল-রেজার...
ইরানের প্রেসিডেন্ট ইব্রাহিম রাইসিসহ অন্যান্য সফরসঙ্গীরা এখন চিরনিদ্রায় শায়িত। নিজের জন্মস্থান মাশহাদ শহরের শিয়াদের মূল কবরস্থান ইমাম রেজার পবিত্র মাজারে রাইসিকে দাফন করা হয়।
হেলিকপ্টার দুর্ঘটনায় নিহত ইরানি প্রেসিডেন্ট ইব্রাহিম রাইসির মরদেহ দেশটির দ্বিতীয় বৃহত্তম শহর মাশহাদে পৌঁছেছে। ৬৩ বছর বয়সী সদ্যপ্রয়াত এই প্রেসিডেন্টের জন্ম ও বেড়ে ওঠা ইরানের উত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় এই...
দুর্ঘটনা সব জায়গায় ঘটলেও, সব দুর্ঘটনা সমান নয়। ইরানের প্রেসিডেন্ট ইব্রাহিম রাইসিকে বহনকারী একটি হেলিকপ্টার বিধ্বস্ত হবার ১৮ ঘণ্টারও বেশি সময় পর প্রেসিডেন্ট ও পররাষ্ট্রমন্ত্রীসহ ৯ আরোহীর মৃত্যুর...
রহস্যজনক ও নৃশংস হত্যাকাণ্ডের শিকার তিনবারের সংসদ সদস্য আনোয়ারুল আজিম আনারের পুরো মরদেহ পাওয়ার আশা নেই। তবে, দেহাবশেষ উদ্ধারে অভিযান চালাচ্ছে সিআইডির টিম উদ্ধার ও স্থানীয় থানা পুলিশ।
হার দিয়ে শুরু হওয়ায় শঙ্কা ছিলো সিরিজ খোয়ানোর। সিরিজে টিকে থাকতে এই ম্যাচের জয়ের বিকল্প ছিলো না। তবে শঙ্কাই সত্যি হলো। সিরিজ হারলো বাংলাদেশ।
নব্বইয়ের দশকের অত্যন্ত জনপ্রিয় ও আলোচিত জুটি সঞ্জয় দত্ত ও মাধুরী দীক্ষিত। তাদের প্রেম পর্দা থেকে গড়িয়েছিল বাস্তব জীবনে। এর পর বিচ্ছেদ, বিতর্ক আর অভিযোগের পাহাড়ে যেন তারা চাপা পড়ে যান। বিচ্ছেদের পর...
জন্মস্থান মাশহাদে চিরনিদ্রায় শায়িত হলেন হেলিকপ্টার দুর্ঘটনায় নিহত ইরানের প্রেসিডেন্ট ইব্রাহিম রাইসি। কয়েকদিনের আনুষ্ঠানিকতা শেষে বৃহস্পতিবার ইরানের উত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় এই শহরে ইমাম আলী আল-রেজার...
লোডিং...
Nagad Ads
সর্বশেষপঠিত

এলাকার খবর


© ২০২৪ প্রকাশক কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত