ঢাকা ২৬ নভেম্বর ২০২২, ১২ অগ্রহায়ণ ১৪২৯

ভোট নিয়ে আওয়ামী লীগের দিবা স্বপ্ন ভেঙে দেয়া হবে: বিএনপি

শফিক আহমেদ, একাত্তর
প্রকাশ: ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২২ ১৯:৪১:১০ আপডেট: ২৭ সেপ্টেম্বর ২০২২ ১৯:৫৮:২৯
ভোট নিয়ে আওয়ামী লীগের দিবা স্বপ্ন ভেঙে দেয়া হবে: বিএনপি

দলীয় সরকারের অধীনে নির্বাচন নিয়ে ক্ষমতাসীন দল আওয়ামী লীগের দিবা স্বপ্ন ভেঙে দেয়া হবে বলে হুঁশিয়ারি দিয়েছেন বিএনপি নেতারা।

তারা বলেন, নির্দলীয় সরকার ছাড়া ভোট হলে সেটি প্রতিহত করবে বিএনপি। সেই সাথে দলীয় সরকারের অধীনে ভোটের আয়োজন করা নিয়ে নির্বাচন কমিশনকেও হুঁশিয়ার করেন তারা।

ঢাকা মহানগরীর ১৬ স্পটে ধারাবাহিক সমাবেশের অংশ হিসেবে মঙ্গলবার (২৭ সেপ্টেম্বর) হাতিরঝিল এলাকায় এক সমাবেশে এসব কথা জানান, বিএনপি নেতারা।

নিত্যপণ্যের দাম কমানো ও সরকারের পদত্যাগের দাবিতে চলা ধারাবাহিক কর্মসূচির অংশ হিসেবে তেজগাঁও জোনে সমাবেশের আয়োজন করে ঢাকা মহানগর উত্তর বিএনপি।

হাতিরঝিলের বাংলামটর প্রান্তে এই সমাবেশে নিত্যপণ্যের দাম কমানো ও খালেদা জিয়ার নিঃশর্ত মুক্তি দাবি করে শ্লোগান দেন বিএনপির নেতাকর্মীরা।

প্রতিবাদ সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য মির্জা আব্বাস দাবি করেন, আওয়ামী লীগের ওপরে জনগণের আস্থা নেই।

তিনি বলেন, যারা বিএনপি-আওয়ামী লীগ করে না, নিরপেক্ষ, তারাও আওয়ামী লীগকে বিশ্বাস করে না। বিএনপির ওপরে তারা ভরসা করতে পারে, বিএনপিকে বিশ্বাস করে।

আজকে দেশের সাংবিধানিক কোনো প্রতিষ্ঠান ঠিক নেই দাবি করে মির্জা আব্বাস বলেন, কোর্ট বলেন, কাচারি বলেন, থানা বলেন, পুলিশ বলেন কোনো কিছুরই ঠিক নাই। সব নষ্ট করেছে।

জনগণের টাকায় কেনা বন্ধুক দিয়ে গুলি করে জনগণকে হত্যা করা হচ্ছে উল্লেখ করে তিনি বলেন, কোনো স্বৈরশাসক কখনো বুঝতে পারেনি যে, বন্দুকের নল ঘুরতে পারে।

যখন বুঝতে পারে তখন তাদের আর সময় থাকে না। সুতরাং সময়ের আগেই সাবধান হয়ে যান। বন্ধুকের নল কিন্তু আপনাদের দিকেও ঘুরে যেতে পারে বলে সতর্ক করেন এই বিএনপি নেতা।

তিনি বলেন, ক্ষমতায় থাকার জন্য কত প্রক্রিয়া করতেছেন। এই যে ইভিএম কীসের ইভিএম? আট হাজার কোটি টাকা দিয়ে ইভিএম কিনে আনবেন। এই টাকাও ব্যয় হবে অবৈধভাবে।

আব্বাস বলেন, এই নির্বাচন কমিশনের অধীনে কোনো নির্বাচন বাংলাদেশে হবে না। হতে দেওয়া হবে না। ওনারা বলেন, বিএনপি নির্বাচনে জিততে পারবে না বলে নির্বাচনে আসতে চায় না।

তিনি আরো যোগ করেন, আরে- বিএনপি তো নির্বাচনে আসতে চায়। নিরপেক্ষ তত্ত্বাবধায়ক সরকার অথবা নির্বাচনকালীন সরকারের অধীনে নির্বাচন দিলেই বিএনপি নির্বাচনে যাবে।

আরও পড়ুন: চেয়ারম্যান সেলিমের জামিন শুনানি ১২ অক্টোবর

মহানগর উত্তরের আহ্বায়ক ডাকসুর সাবেক ভিপি আমান উল্লাহ আমানের সভাপতিত্বে ও সদস্য সচিব আমিনুল হকের পরিচালনায় সমাবেশে আরও বক্তব্য দেন, বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান আব্দুল আউয়াল মিন্টু, চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা আবুল খায়ের ভূঁইয়া, জয়নুল আবদিন ফারুক, মহানগর দক্ষিণের আহ্বায়ক আবদুস সালাম, বিএনপি নেতা নাজিম উদ্দিন আলম, শহীদ উদ্দিন চৌধুরী এ্যানি, আনিসুর রহমান তালুকদার খোকন, চেয়ারপারসনের বিশেষ সহকারী শামসুর রহমান শিমুল বিশ্বাস, মহানগর বিএনপি নেতা তাবিথ আউয়াল, সাইফুল আলম নীরব, এল রহমান, আনোয়ারুজ্জামান আনোয়ার, মুনসী বজলুল বাসিত আনজু, যুবদলের এসএম জাহাঙ্গীর, শফিকুল ইসলাম মিল্টন, স্বেচ্ছাসেবক দলের এসএম জিলানী, ফখরুল ইসলাম রবিন, শ্রমিক দলের মোস্তাফিজুল মজুমদার, তাঁতী দলের আবুল কালাম আজাদ, জাসাসের জাকির হোসেন রোকন, মহিলা দলের রুনা লায়লা প্রমুখ।

একাত্তর/আরএ

মন্তব্য

এই নিবন্ধটি জন্য কোন মন্তব্য নেই.

আপনার মন্তব্য লিখুন

Nagad Ads
ছাদ খোলা অভিবাদন!

ছাদ খোলা অভিবাদন!

২ মাস ৫ দিন আগে