সেকশন

বুধবার, ২৪ এপ্রিল ২০২৪, ১১ বৈশাখ ১৪৩১
 

পাকিস্তানকে সমর্থন করায় ভারতে স্কুল শিক্ষক বরখাস্ত

আপডেট : ২৬ অক্টোবর ২০২১, ০৪:৪৪ পিএম

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে ভারতের বিপক্ষে প্রথমবারের মতো পাকিস্তানের জয় উদযাপন করায় রাজস্থানে বেসরকারি স্কুলের এক নারী শিক্ষককে বরখাস্ত করা হয়েছে। গত রোববার (২৪ অক্টোবর) ভারত-পাকিস্তান ম্যাচের পর সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে পাকিস্তানের জয়ে উচ্ছ্বাস প্রকাশ করে স্ট্যাটাস দেওয়ায় তাকে বরখাস্ত করেছে স্কুল কর্তৃপক্ষ।

বিশ্বকাপে প্রথমবারের মতো গত রোববার ভারতকে হারিয়ে ইতিহাস গড়েছে পাকিস্তান। কাশ্মির মিডিয়া সার্ভিসের বরাত দিয়ে ইন্ডিয়া টুডের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, পাকিস্তানের জয় উদযাপন করায় রাজস্থানের উদয়পুরের নীরজা মোদি স্কুল থেকে নাফিসা আত্তারি নামের ওই স্কুল শিক্ষককে বরখাস্ত করা হয়েছে। তিনি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম হোয়াটসঅ্যাপে ওই স্ট্যাটাস দিয়েছিলেন।

দুবাইয়ে টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের বহুল আলোচিত ম্যাচে পাকিস্তান ভারতকে হারানোর কিছুক্ষণের মধ্যে ‘জিত গেইই... আমরা জিতেছি’ লিখে হোয়াটসঅ্যাপ স্ট্যাটাস দেওয়ার পরপরই স্কুল প্রশাসনের ক্ষোভের মুখে পড়েন ওই শিক্ষক।

এছাড়া ওই ম্যাচের পাকিস্তানি খেলোয়াড়দের কয়েকটি ছবিও আপলোড করেন তিনি। যেখানে পাকিস্তানি ক্রিকেটারদের জয় উদযাপন করতে দেখা যায়।

আরও পড়ুনঃ ধর্ষণ মামলায় একজনের চল্লিশ বছরের কারাদণ্ড

ইন্ডিয়া টুডে বলছে, স্কুলের একজন শিক্ষার্থীর অভিভাবক নাফিসা আত্তারির কাছে পাকিস্তান সমর্থন করেন কি-না জানতে চাইলে তিনি সাফ ‘হ্যাঁ’ জানিয়ে দেন। পরে শিক্ষার্থীদের মধ্যে স্টাটাসটি ব্যাপকভাবে ছড়িয়ে পড়লে স্কুলের ব্যবস্থাপনা কর্তৃপক্ষ তাকে বরখাস্ত করে।


একাত্তর/এসএ

গাজা উপত্যকায় প্রতিদিন দীর্ঘ হচ্ছে লাশের সারি। বাড়ছে সাধারণ মানুষের ভোগান্তি। অনেকে পুরো পরিবার হয়ে নিস্ব। এরই মধ্যে, মৌলিক চাহিদার চরম অভাবে মানবেতর অবস্থায় দিন কাটছে যুদ্ধবিধ্বস্ত গাজাবাসীর।
পশ্চিমাদের দাবি ও চাপের পরও ফিলিস্তিনের স্বাধীনতাকামী সংগঠন হামাস প্রশ্নে নিজেদের অবস্থানে অনড় থাকার কথা জানিয়েছে বিশ্বের অন্যতম ধনাঢ্য দেশ কাতার। গাজা যুদ্ধে মধ্যস্থতা করার প্রক্রিয়া চলার সময়...
ভারতে একটু ঝড়ো বাতাসেই ধসে পড়েছে আট বছর ধরে নির্মাণাধীন থাকা একটি সেতু। ধসে পড়া সেতুর কংক্রিটের নিচে চাপা পড়া থেকে অল্পের জন্য রক্ষা পেয়েছেন অর্ধ-শতাধিক মানুষ।
বিশ্বে জলবায়ু পরিবর্তন-সংক্রান্ত ক্ষয়ক্ষতি সবচেয়ে বেশি হয়েছে এশিয়া মহাদেশের দেশগুলোতে। এসব দেশে ২০২৩ সালে মানুষ হতাহত ও অর্থনৈতিক ক্ষতির বেশির ভাগই হয়েছে বন্যা ও ঝড়ের কারণে।
গাজা উপত্যকায় প্রতিদিন দীর্ঘ হচ্ছে লাশের সারি। বাড়ছে সাধারণ মানুষের ভোগান্তি। অনেকে পুরো পরিবার হয়ে নিস্ব। এরই মধ্যে, মৌলিক চাহিদার চরম অভাবে মানবেতর অবস্থায় দিন কাটছে যুদ্ধবিধ্বস্ত গাজাবাসীর।
রাজধানীর খিলগাঁও থেকে শিশু পর্নোগ্রাফির অভিযোগে আবারও শিশু-কিশোর সাহিত্যিক টিপু কিবরিয়াকে দুই সহযোগীসহ গ্রেপ্তার করেছে কাউন্টার টেরোরিজম অ্যান্ড ট্রান্সন্যাশনাল ক্রাইম (সিটিটিসি) সদস্যরা। তিনি...
পশ্চিমাদের দাবি ও চাপের পরও ফিলিস্তিনের স্বাধীনতাকামী সংগঠন হামাস প্রশ্নে নিজেদের অবস্থানে অনড় থাকার কথা জানিয়েছে বিশ্বের অন্যতম ধনাঢ্য দেশ কাতার। গাজা যুদ্ধে মধ্যস্থতা করার প্রক্রিয়া চলার সময়...
যেকোন দুর্যোগে মানুষই দাঁড়ায় মানুষের পাশে। এবারো চলমান তাপদাহে দুঃসহ পরিস্থিতিতে তৈরি হচ্ছে মানবকিতার উদাহারণ। 
লোডিং...
Nagad Ads
সর্বশেষপঠিত

এলাকার খবর


© ২০২৪ প্রকাশক কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত